ঢাকা১৫ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

আদমদীঘিতে নির্যাতনে গৃহবধুর গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার অভিযোগ

বার্তা বিভাগ
মার্চ ৫, ২০২৪ ১০:০৪ অপরাহ্ণ
Link Copied!

নাসিরা সুলতানা, (আদমদীঘি–বগুড়া) প্রতিনিধি: বগুড়ার আদমদীঘিতে স্বামীর নির্যাতনে লাভলী বেগম ওরফে লিবেন (৩৩) নামের এক গৃহবধু গলায় ওড়নার ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। তবে লাভলীর পিতার দাবী মেয়ের জামাই নির্যাতন ও ভাসুরে প্ররোচনায় তার মেয়ে আত্মহত্যা করেছে।

মৃত লাভলী বেগম আদমদীঘি সদর ইউপির তালশন গ্রামের মাছ ব্যবসায়ী আবুল কাশেরে স্ত্রী ও দুই
সন্তানের জননী। গতকাল মঙ্গলবার (৫মার্চ) বেলা সাড়ে ১১ টায় তালশন গ্রামে স্বামীর শয়ন ঘরে এ
ঘটনা ঘটে। পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরন করেছে। এ ঘটনার পর থেকেই লাভলীর স্বামী
আবুল কাশেম গা ঢাকা দিয়েছে।

এ ঘটনায় লাভলী বেগমের বাবা আনছার আলী বাদি হয়ে থানায়
জামাই আবুল কাশের ও তার ভাই দুলাল মন্ডলের বিরুদ্ধে আত্মহত্যায় প্ররোচিত সংক্রান্ত একটি
মামলা করেন। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, আদমদীঘি উপজেলার তালশন গ্রামের তাছের আলীর ছেলে আবুল কাশেমের সাথে একই উপজেলার উথরাইল জাহানাবাজ গ্রামের আনছার আলীর মেয়ের প্রায় ১৫ বছর
পূর্বে বিয়ে হয়। তাদের দুটি সন্তান রয়েছে।

বিয়ের পর থেকে সংসার জীবনে তাদের কলহ লেগেই
থাকতো। গতকাল মঙ্গলবার সকালে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে আবারো কলহ ও লাভলী বেগমকে শারীরিক
নির্যাতন করে। বেলা সাড়ে ১১ টায় লাভলী বেগমের স্বামীগৃহে শয়ন ঘরে ফ্যানের সাথে গলায়
ওড়নার ফঁাস দিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পেয়ে স্বজনরা উদ্ধার করে আদমদীঘি হাসপাতালে নিলে
কর্তব্যরত চিকিৎসক লাভলী বেগমকে মৃত ঘোষনা করেন। লাভলী বেগমের বাবা আনছার আলী বলেন.
মঙ্গলবার সকালে তার মেয়েকে শারীরিক নির্য়াতন করার সংবাদ পেয়ে তালশন জামাই বাড়ি অসেন।
ঘটনা জানার চেষ্টা করলে জামাই আবুল কাশেম তাকে তাড়িয়ে দেয়।

তার দাবী মেয়ে লাভলী বেগম
শারীরিক নির্যাতন সহ্য করতে না পারায় ও ভাসুর আত্মহত্যার জন্য প্ররোচিত করায় সে
আত্মহত্যা করেছে। স্বামী আবুল কাশেম ও ভাসুর দুলাল মন্ডল গা ঢাকা দিয়ে মোবাইল ফোন বন্ধ
রাখায় তাদের বক্তব্য পাওয়া যায়নি। আদমদীঘি থানার পুলিশ পরদির্শক (তদন্ত) একেএম মঈন উদ্দিন
ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে বলেন. মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরন করা হয়। এ ঘটনায় মৃত লাভলীর বাবা
বাদি হয়ে স্বামী আবুল কাশের ও ভাসুর দুলাল মন্ডলের বিরুদ্ধে আত্মহত্যায় প্ররোচিত সংক্রান্ত
একটি মামলা করেন।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে হয়। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো। বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বে-আইনি। যোগাযোগ: হটলাইন: +8801602122404 ,  +8801746765793 (Whatsapp), ই-মেইল: [email protected]